অপরাধ

চাকরি দেওয়ার নামে নারীদের সাথে প্রতারণা, কারাগারে ববি রেজিস্ট্রারের পিএ

  প্রতিনিধি ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২২ , ১১:৫০:৩৪ প্রিন্ট সংস্করণ

নিজস্ব প্রতিবেদক : নারীদের চাকরি দেওয়ার নামে প্রতারণার অভিযোগে বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়ের (ববি) রেজিস্ট্রারের ব্যক্তিগত সহকারী (পিএ) আব্দুল বাতেনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে দায়ের হওয়া মামলায় বর্তমানে তিনি পটুয়াখালীর কারগারে আছেন।

সম্প্রতি ববি কর্তৃপক্ষ জনবল নিয়োগে বিজ্ঞপ্তি দেয়। এতে অনেক চাকরি প্রত্যাশী আবেদন করেন। অভিযোগ রয়েছে, পিএ বাতেন আবেদনপত্র থেকে নারী চাকরি প্রত্যাশীদের মোবাইল নম্বর সংগ্রহ করে তাদের প্রলোভন দেখান। চাকরি প্রত্যাশীদের একজন ছিলেন বিচারকের স্ত্রী। মনে করা হচ্ছে, তাকে প্রলোভন দেখাতে গিয়ে ফেঁসে যান বাতেন।

পটুয়াখালী সদর থানার ওসি মনিরুজ্জামান বৃহস্পতিবার জানান, আব্দুল বাতেনের বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা হয়েছে। তাকে সুনির্দিস্ট অভিযোগে গ্রেপ্তারের পর আদালতে পাঠানো হয়। আদালত তাকে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন।

ববি সুত্র জানায়, যে কোন সময় আটক হতে পারেন- এমন শংকায় বাতেন তার মোবাইল ফোন অফিসে রেখে বাসায় যেতেন। গত সোমবার দুপুরে অসুস্থতার অজুহাত দেখিয়ে অফিস থেকে পালানোর চেস্টা করেন। পথে পটুয়াখালী সদর থানা পুলিশ তাকে আটক করে। বাতেনের ভাগ্নে ববির অর্থ ও হিসাব শাখার প্রশাসনিক কর্মকর্তা শহিদুল ইসলাম বলেন, সোমবার তার মামাকে নিয়ে মোটরসাইকেলে বের হওয়ার সময় ববির প্রধান ফটকে পুলিশ পথরোধ করে। পুলিশ বাতেনের মোবাইলটি অফিস থেকে আনে।

পুলিশ সূত্রে জানায়, পিএ বাতেনের ফোনসেট যাচাই করে চাকরিপ্রত্যাশী পাঁচ-ছয় নারীকে উত্ত্যক্ত ও হয়রানীর তথ্য পাওয়া গেছে। চাকরীর আবেদনপত্র থেকে তিনি এসব নম্বর সংগ্রহ করেছেন। এরসঙ্গে আরও কেউ জড়িত আছেন কিনা খতিয়ে দেখছে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী।

এ বিষয়ে বিশ্ববিদালয়ের রেজিস্ট্রার অধ্যাপক মুহসীন উদ্দীন বলেন, বাতেনের বিষয়টি তারা এখনও দাপ্তরিকভাবে জানেন না। অনুপস্থিতির বিষয়ে জানতে তাকে চিঠি দেওয়া হবে। নারী চাকুরী প্রত্যাশীরা হয়রানি হয়েছেন কি-না তা খতিয়ে দেখার জন্য বিষয়টি বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষকে অবহিত করা হবে।

Print Friendly, PDF & Email

আরও খবর

Sponsered content

Verified by MonsterInsights