২১শে জানুয়ারি, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, শুক্রবার

পর্যটক আকর্ষণে কুয়াকাটা সমুদ্র সৈকতের জীববৈচিত্র্য রক্ষায় লাল কাকড়া ও কচ্ছপের অভয়াশ্রম আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন

আপডেট: মে ৯, ২০২১

  • ফেইসবুক শেয়ার করুন

কে এম জহির,কুয়াকাটাঃ

সূর্য উদয় এবং সূর্য অস্তের ব্যালা ভুমি সাগরকন্যা কুয়াকাটা সমুদ্র সৈকতের জীববৈচিত্র্য রক্ষায় লাল কাকড়া ও কচ্ছপের অভয়াশ্রম আনুষ্ঠানিক ভাবে আজ বেলা ১২ টায় উদ্বোধন করা হয়েছে । ওয়ার্ড ফিস এর আওতায় ইকোফিস ২ প্রকল্পের অর্থায়নে কুয়াকাটা সমুদ্র সৈকতের পূর্ব পাশে চর গঙ্গামতি এলাকায় হাফ কিলোমিটার এলাকা ও পশ্চিম পাশে তিন নদীর মোহনাতে হাফ কিলোমিটার এলাকা রেড জোন করে অভয়াশ্রম বাস্তবায়ন করেছেন কলাপাড়া উপজেলা প্রশাসন, ট্যুরিস্ট পুলিশ কুয়াকাটা জোন ও ট্যুর অপারেটরস এসোসিয়েশন অব কুয়াকাটা (টোয়াক)।
সী-বীচ এলাকাতে পর্যাপ্ত পরিমানের লাল কাকড়া বৃদ্ধি সহ কচ্ছপের ডিম পারাকে নিশ্চিত করে পরিবেশের ভারসম্য রক্ষায় এ প্রকল্প হাতে নেয়া হয়েছে।
উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন, ধুলাসার ইউনিয়ন চেয়ারম্যান আঃ জলিল আকন, ট্যুর অপারেটরস এসোসিয়েশন অব কুয়াকাটা (টোয়াক) প্রেসিডেন্ট রুমান ইমতিয়াজ তুষার, কলাপাড়া উপজেলা সহকারী মৎস্য কর্মকর্তা মহসিন রেজা, ইকোফিস ২ পটুয়াখালী জেলা সহকারী গবেষক সাগরিকা স্মৃতি, টোয়াক ভাইস প্রেসিডেন্ট লুৎফুল হাসান রানা, ডিরেক্টর অর্গানাইজ আবুল হোসেন রাজু, ডিরেক্টর পিআর কে এম বাচ্চু প্রমূখ।
টোয়াক প্রেসিডেন্ট রুমান ইমতিয়াজ তুষার জানান, লকডাউন চলার কারনে সী-বীচের দুই পাশে অসংখ্য লাল কাকড়ার বিচরণ দেখা যায়। অভয়াশ্রম নির্মান হওয়ায় প্রচুর পরিমানে এর বংশ বৃদ্ধি পাবে, পাশাপাশি পর্যটকদের জন্য এটি প্রকৃতিকে কাছ থেকে দেখার সুযোগ পাবে। ইকোফিস সহকারী গবেষক সাগরিকা স্মৃতি জানান, জীববৈচিত্র্য রক্ষার অংশ হিসেবে আমরা লাল কাকড়া ও কচ্ছপের অভয়াশ্রম নির্মানে উদ্যোগ নিয়েছি। লাল কাকড়া মাটির গুনগত মান বৃদ্ধি করে। পরিবেশের ভারসম্য রক্ষা করে। এদের প্রতি যত্নবান হওয়া আমাদের প্রত্যেকের দায়ীত্ব।

Print Friendly, PDF & Email
  • ফেইসবুক শেয়ার করুন

বরিশাল খবর ২৪.কমে প্রকাশিত-প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।