২৯শে ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ইং, শনিবার

বেতাগীতে ৩ বন্ধু মিলে কিশোরীকে পালাক্রমে ধর্ষণ

আপডেট: জানুয়ারি ২২, ২০২০

  • ফেইসবুক শেয়ার করুন

বেতাগী (বরগুনা) প্রতিনিধি :

বরগুনার বেতাগীতে ওরশ মাহফিল থেকে ডেকে নিয়ে তিন বন্ধু মিলে এক কিশোরীকে পালাক্রমে ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে।

গত মঙ্গলবার (২১ জানুয়ারি) রাত সাড়ে ৮টায় উপজেলার হোসনাবাদ ইউনিয়নের মীরা বাড়ি সংলগ্ন এলাকায় এ ঘটনাটি ঘটে। এ ঘটনায় থানায় মামলা হয়েছে।

প্রাপ্ত তথ্যানুযায়ী জানা গেছে, উপজেলার হোসনাবাদ ইউনিয়নের জলিসা বাজার সংলগ্ন মীরা বাড়িতে গত মঙ্গলবার রাতে ওরশ আয়োজন ছিল।

ওরশ মাহফিলে ওই এলাকায় ধর্ষণের শিকার হওয়া কিশোরীটি যায়। রাত সাড়ে ৮টার সময় কিশোরীকে কথা আছে বলে কৌশল করে একই এলাকার বারেক হাওলাদারের ছেলে নাইম হোসেন (১৮) ডেকে নিয়ে যায়। এ সময় নাইমের কাছাকাছি অবস্থান করছিল একই এলাকার অপর দু‘ বন্ধু মোতালেব হাওলাদারের ছেলে সাগর হাওলাদার (১৭) ও নুরুল হকের ছেলে নাইম (১৯) এ বন্ধু একত্রিত হয়ে কিশোরীকে বাগানের মধ্যে নিয়ে যায়। এ সময় কিশোরীকে পালাক্রমে ধর্ষণ করে। রাত ৯ টায় কিশোরীর মা খোঁজ নিয়ে দেখেন তাঁর মেয়ে ওরশ অনুষ্ঠানে নেই এবং বাড়িতেও আসে নাই। এসময় বেশ কিছু লোকজন মিলে কিশোরীকে খোজাঁখুজি করে।

এক পর্যায়ে লাইটে আলো দেখে ধর্ষক ৩ বন্ধু পালিয়ে যায়। কিশোরীর স্বজনারা অজ্ঞান অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে। কিছুক্ষন পরে জ্ঞান ফিরে এলে কিশোরী তাঁর মাকে ওই পাশবিক ঘটনার বর্নণা দেয়।

কিশোরীর মা হামিদা বেগম বাদী হয়ে ঘটনার সাথে সম্পৃক্ত ওই ৩ জনকে আসামী করে বুধবার (২২ জানুয়ারি) বেতাগী থানায় মামলা করেন।

বেতাগী থানার অফিসার ইনচার্জ মো. কামরুজ্জামান মিয়া বলেন, ‘এ ঘটনায় নারী নির্যাতনের আইনে তিন জনকে আসামী করে মামলা রুজু হয়েছে । আসামীদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

Print Friendly, PDF & Email
  • ফেইসবুক শেয়ার করুন

বরিশাল খবর ২৪ প্রকাশিত-প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।