২১শে জানুয়ারি, ২০২০ ইং, মঙ্গলবার

প্রধাণমন্ত্রীর দেয়া ঘরে থাকা হলোনা শুকুর দেওয়ানের

আপডেট: নভেম্বর ১৪, ২০১৯

  • ফেইসবুক শেয়ার করুন

গলাচিপা প্রতিনিধিঃ
প্রধানমন্ত্রীর দেয়া উপহারের সেই ঘরে আর থাকা হলোনা বৃদ্ধ শুকুর দেওয়ানের। ঘরটি প্রশাসনের পক্ষথেকে হস্থান্তরের আগেই না ফেরার দেশে চলে গেলেন। বুধবার বিকেল ৪ টার দিকে পটুয়াখালীর রাঙ্গাবালী উপজেলার কাউখালী গ্রামে আশ্রয়াদাতা শাহজান গাজীর ঘরে তার মৃত্যু হয়।
ছেলের প্রতারনায় সর্বহারা হয়ে ঘোয়াল ঘরে আশ্রয় নেয় এই বৃদ্ধ শুকুর দেওয়ান ও তার স্ত্রী সহুরা বেগম। এনিয়ে গত ২৫ অক্টোবর দৈনিক জাতীয় পত্রিকায় সংবাদ প্রকাশিত হলে প্রধানমন্ত্রীর নজড়ে পরে। এরপর প্রধানমন্ত্রীর তরফ থেকে বৃদ্ধ এই দম্পত্তিকে ঘর ও জমি দেয়ার জন্য স্থানীয় সাংসদকে নির্দেশ দেয়া হয়। প্রধাণমন্ত্রীর নির্দেশে একদিনের মধ্যেই শুরু হয় ঘরের নির্মণ কাজ। বর্তমানে ঘরটির নির্মণ কাজ প্রায় শেষের দিকে। দু’একদিনে মধেই প্রধাণমন্ত্রীর উপহারের এই ঘরটি শুকুর দেওয়ান ও সহুরা বেগমকে হস্থান্তরের কথা রয়েছে। কিন্তু প্রধানমন্ত্রীর উপহারের সেই ঘরে আর থাকা হলোনা হতভাগা সত্তর বছর বয়সী এই বৃদ্ধ শুকুর দেওয়ানের। শুকুর দেওয়ানের মৃত্যুুতে এখন পুরো একা হয়ে যাবে তার স্ত্রী সহুরা বেগম। স্বামীর মৃত্যুকে কোনভাইবেই সমাল দিতে পারছেননা সহুরা।
শুকুর দেওয়ানের মৃত্যুতে শোক প্রকাশ করেছেন, পটুয়াখালী-৪ আসনের সাংসদ অধ্যক্ষ মহিব্বুর রহমান মহিব, রাঙ্গাবালী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো.মাশফাকুর রহমান, রাঙ্গাবালী থানা অফিসার ইনচার্জ আলী আহম্মেদ, রাঙ্গাবালী প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা বাবু তপন কুমার ঘোষ, প্রেসক্লাবের সভাপতি মো.জোবায়ের হোসেন, সাধারণ সম্পাদক কামরুল হাসান রুবেল, সামাজিক সংগঠনের নেতৃবৃন্দ ।

Print Friendly, PDF & Email
  • ফেইসবুক শেয়ার করুন

বরিশাল খবর ২৪ প্রকাশিত-প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।