১৭ই জানুয়ারি, ২০২০ ইং, শুক্রবার

গলাচিপার যৌতুক না দেওয়ায় স্ত্রীর উপর নির্মম অত্যাচার! অবশেষে বাবার বাড়ীতে ঠিকানা

আপডেট: আগস্ট ১৬, ২০১৯

  • ফেইসবুক শেয়ার করুন

সঞ্জিব দাস, গলাচিপা (পটুয়াখালী) প্রতিনিধিঃ
পটুয়াখালীর গলাচিপা যৌতুক না দেওয়ায় স্ত্রী রিপা বেগম (১৮) কে মারধর করে বাবার বাড়ীতে প্রেরন করতে পাষন্ড স্বামী নূর হোসেন হাওলাদার। জানাগেছে, রিপা বেগম হচ্ছেন পৌর সভার ৯নং ওয়ার্ডের দেওয়ান বাড়ীর দেলোয়ার দেওয়ানের মেয়ে। পাষন্ড স্বামীর নূর হোসেন হাওলাদার হচ্ছেন উপজেলার গলাচিপা ইউনিয়নের পক্ষিয়া গ্রামের হাওলাদার বাড়ীর ইউসুব হাওলাদারের ছেলে। রিপা বেগম জানান, নূর হোসেনের সাথে রিপার দেড় বছর আগে শরীয়াত মোতাবেক কাবিন মূল বিবাহ হয়। বিবাহের পর থেকে রিপা তার বাবার কাছ থেকে ৫০ হাজার টাকা যৌতুক বাবদ স্বামীকে দেয়। পাষন্ড স্বামী নুর হোসেন রিপাকে কোরবানি উপলক্ষে বাবার কাছে মোটরসাইকেল কেনার জন্য টাকা চাইতে বলে রিপা না চাওয়ায় একপর্যায়ে পাষন্ড স্বামী তাকে মারধর করে।

রিপাকে মারধর করলে এলকাবাসী রিপার মা বাবাকে খবর দেয়। রিপার মা বাবা বৃহস্পতিবার পাষন্ড স্বামীর বাড়ী থেকে নিয়ে আসে। এ বিষয় রিপার বাবা দেলোয়ার দেওয়ান প্রতিবেদকে বলেন, আমার মেয়েকে আমি দেড় বছর আগে বিয়ে দেই। কিন্তু রিপার স্বামী যৌতুকের জন্য আমার আদরের মেয়েকে মারধর করে। ঐ এলাকাবাসী আমাদেরকে খবর দিলে আমার মেয়েকে নিয়ে আসি। রিপার মা রিনা বেগম বলেন, আমার মেয়েকে বিবাহ দেওয়ার পর একের পর এক অযুহাত দেখিয়ে আমাদের কাছ থেকে ৫০ হাজার টাকা নিয়ে মেয়ের জামাই। আবার কোরবানী উপলক্ষে মটরসাইকেল কেনার জন্য টাকা চাইতে মেয়ে আমাদের কাছে না চাওয়ায় আমার মেয়েকে মারধর করে।

এ বিষয় নিয়ে রিপার স্বামী নূর হোসেন হাওলাদারের কাছে জানতে চাইলে তিনি বিষয়টি এড়িয়ে যান। এ বিষয় ৯নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর মো. শাহীন মিয়া বলেন আসলেই রিপার পরিবার অসহায়। গলাচিপা ইউনিয়ানের পরিষদ চেয়ারম্যান হাবিবুর রহমান হাদী বলেন, বিষয়টি আমি শুনেছি দু পক্ষকে আমার পরিষদে ডেকে মিমাংশার ব্যবস্থা করবো।

Print Friendly, PDF & Email
  • ফেইসবুক শেয়ার করুন

বরিশাল খবর ২৪ প্রকাশিত-প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।